1. admin@bbcnews24.news : admin :
মানবতার চিকিৎসক ডাঃ মোশাররফ হোসেন মুক্ত - BBC NEWS 24
মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৮:৪১ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
বকশীগঞ্জ বিপুল সংখ্যক কর্মীসমর্থক নিয়ে লিফলেট বিতরণ করেন -মেয়র নজরুল পরিকল্পনা মন্ত্রীর নির্দেশে নান্দাইলে যানজট নিরসনে উচ্ছেদ হচ্ছে অবৈধ স্থাপনা সড়ক দুর্ঘটনা প্রতিরোধে সচেতনতামূলক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাটে আ.লীগ নেতাকর্মীদের সাথে আনন্দ উৎসব ও মতবিনিময় মেলান্দহে মুক্তিযোদ্ধা ও মুক্তিযোদ্ধা সন্তান কমান্ড আয়োজনে মতবিনিয়ন সভা অনুষ্ঠিত হালুয়াঘাট উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার কামরুজ্জামান এর মতবিনিময় ভালুকায় ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের অফিসে হামলা ও ভাংচুরের অভিযোগ মিরসরাইয়ে দুই ইটভাটাকে সাড়ে ৯ লাখ টাকা জরিমানা ভালো বই যে কোন সময় যে কোন মানুষকে আমূল বদল দিতে পারে : আর.সি.পাল শেরপুরে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় ১৯ শিক্ষককে অব্যাহতি, ২০ পরীক্ষার্থী বহিস্কার

মানবতার চিকিৎসক ডাঃ মোশাররফ হোসেন মুক্ত

বিবিসি নিউজ ২৪ ডেস্ক
  • সময় : সোমবার, ১৭ মে, ২০২১
  • ৩২৪ বার পঠিত

সোহেল রানা বাবু,বাগেরহাট প্রতিনিধিঃ মহামারী করোনার প্রাদুর্ভাবের শুরু থেকে আজ পর্যন্ত বাগেরহাটবাসীকে করোনার ঝুঁকির মধ্যেও নিরবিচ্ছিন্ন চিকিৎসা সেবা দিয়ে যাচ্ছেন ডা.মোশাররফ হোসেন (মুক্ত)।বাগেরহাট বাসীর কাছে এক পরিচিত নাম। শুধু ডাক্তার হিসেবেই নয়, একজন নীতিবান, মানবিক ন্যায়পরায়ন-দেশপ্রেমিক মানুষ হিসেবেও তার রয়েছে অনেক যশ-খ্যাতি।

বাগেরহাট জেলার প্রত্যন্ত অঞ্চলের মানুষের কাছেও ডাঃ মোশাররফ হোসেন মুক্ত একজন দেবতুল্য মানুষ। মানুষের বিপদে আপদে বুক চিতিয়ে বারবার পাশে দাঁড়িয়েছেন তিনি।

এই মহান দেশপ্রেমিক এর জন্ম জেলা বাগেরহাট।যার কারনে বাগেরহাটের জন্য রয়েছে তার ভেতরে অন্য রকম টান।সঙ্গত কারনে হয়তো তিনি বাগেরহাটে স্থায়ী ভাবে বসবাস করতে পারেন না,কিন্তু বিপদের দিনে ঠিকই মাতৃভুমি ও প্রিয় মানুষদের কাছে ছুটে আসেন তিনি।

মহামারী করোনা ভাইরাস যখন বাগেরহাটে ছোবল মারে ঠিক সেদিন থেকে ডাঃ মোশাররফ হোসেন (মুক্ত)বাগেরহাটবাসীর স্বার্থে, নিজের জন্মভুমিকে নিরাপদ রাখতে, কঠিন দেশপ্রেমের প্রমান করে দিয়ে জীবন বাজি রেখে করোনা যুদ্ধে ঝাঁপিয়ে পড়েন।

করোনা আক্রান্ত মানুষদের সেবা করার জন্য গঠন করেন “করোনা স্বাস্হ্য সেবা স্বেচ্ছাসেবক টিম”।সহ যোদ্ধাদের নিয়ে নেমে পড়েন কোভিড রনক্ষেত্রে।
সেনাপতির মত দায়িত্ব কাঁধে নিয়ে তিনি কাজ করে যাচ্ছেন দীর্ঘ এক বছরেরও অধিক সময়।

বাগেরহাটের প্রথম করোনা আক্রান্ত বালক জিহাদ থেকে শুরু করে অধিকাংশ রোগীর বাড়ি গিয়ে চিকিৎসা সেবা দান,খোঁজ খবর নিয়েছেন তিনি। বাগেরহাট শহর থেকে বাইরে দুর দুরের প্রত্যান্ত গ্রামেও দিনের পর দিন স্বাস্হ্য সচেতনতা ক্যাম্পিং করে যাচ্ছেন তিনি। নিজের বিশ্রামের জন্য শুক্রবারও তিনি কাজ থেকে একটু সরে যাচ্ছেন না, শুক্রবারও ছুটে চলেছেন বাগেরহাট জেলার আনাচে কানাচে।

বাগেরহাট সদর,কচুয়া,মোড়েলগঞ্জ,মোংলা, রামপাল,ফকিরহাট,চিতলমারী,মোল্লারহাট, শরনখোলার প্রত্যান্ত গ্রামেও মেডিকেল ক্যাম্পিং করে স্বাস্হ্য সেবা দিয়ে চলেছেন মানবতার চিকিৎসক ডাঃ মোশাররফ হোসেন মুক্ত।

ছুটে গিয়েছেন মাইলের পর মাইল মেঠো পথ পেরেয়ি করোনা আক্রান্ত রোগীর চিকিৎসা দিতে এবং তাদের খোঁজ খবর নেয়ার জন্য।প্রত্যন্ত গ্রামে (অঁজ পাড়া গা) যেখানে গাড়ি নিয়ে যাওয়া সম্ভব নয় সেখানেও ভ্যান গাড়িতে পৌঁছেছেন এই মহান সেবক।

এদিকে কোভিডের প্রথম দিকে ডা.মোশাররফ হোসেন (মুক্ত)’র মেয়ে আরেক করোনা যোদ্ধা ডা.সাবরিনা মোহনা করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন।

মহামারী করোনা ভাইরাস এর সাথে যুদ্ধের প্রায় বর্ষ পুর্তি হচ্ছে। নিজের কাজের সম্পর্কে একান্ত সাক্ষাতকারে তিনি জানান ব “১৯৮৮ সালে বিদেশ থেকে আসার পরে জন্মভূমি বাগেরহাটে এতদিন সময় কাটানো হয় নি। করোনার ছোবলের সময় নিজেকে আর আটকে রাখতে পারি নি,নিজের প্রিয় জন্মভূমিকে ভালো রাখতে নিজের জায়গা থেকে ঝাঁপিয়ে পড়েছি।আমি একটানা এতদিন কখনো চেম্বার করি নি,তারপর আবার শুক্রবারও শহরের বাইরে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প করতেছি।গত ঈদের চাঁদ রাত্রিতেও ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প করেছি। শুরু থেকেই আমি আমার জায়গা থেকে মানুষের পাশে দাঁড়ানোর চেষ্টা করে যাচ্ছি।
প্রথম করোনা রোগী জিহাদ থেকে শুরু করে মোটামুটি সবারই খোঁজ খবর নিয়ে পাশে থাকার চেষ্টা করেছি।

ঘুর্ণিঝড় আম্পানের পরও চিকিৎসা সেবা চালিয়ে গেছি, সাথে বসতহারা মানুষদের জন্যও সামান্য কিছু করার চেষ্টা করেছি।
কোভিড রোগীদের চিকিৎসা সেবা দিতে গিয়ে আমার মেয়ে মোহনা করোনা আক্রান্ত হয়েছিলো।
আল্লাহর রহমতে দীর্ঘদিন এভাবে বাইরে কাজ করার পরও আমরা সুস্থ আছি। আমরা দেশবাসী,বাগেরহাটবাসীর জন্য করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করে যাবো।আমরা যেন এ লড়ায়ে বিজয়ী হতে পারি সকলের কাছে সেই দোয়া কামনা করি।

আমি আমার করোনা স্বাস্হ্য স্বেচ্ছাসেবক টিমের প্রতিটি সদস্যের কাছেও ঋণী এরা আমার পাশে থেকে চিকিৎসা সেবা প্রদানে সহায়তা সহ কোভিড টিকা প্রদানের কার্যক্রমে জেলা স্বাস্হ্য বিভাগের সহযোগী হিসেবে একেবারে নিঃস্বার্থ ভাবে কাজ করে গেছে এবং যাচ্ছে?
এদিকে করোনা আক্রান্ত মানুষ ও পরিবারের পাশে দাড়িয়ে তাদের কাছে হিরো হিসেবে আখ্যা পেযেছেন মানবতার চিকিৎসক ডাঃ মোশাররফ হোসেন (মুক্ত)।

বাগেরহাটের একাধিক পরিবার বলেন,ডা.মোশাররফ হোসেন মুক্ত’র মত কৃতী সন্তান আমরা বাগেরহাট বাসী পেয়ে ধন্য।নিজের জীবন বাজি রেখে তিনি কাজ করে যাচ্ছেন। তার জন্য আমরা বাগেরহাটবাসী দোয়া করি তিনি যেন সব সময় সুস্থ থাকে ভালো থাকেন।

ডাঃমোশাররফ হোসেন মুক্ত এখন বাগেরহাট বাসীর আলোচনার কেন্দ্রবিন্দু।করোনার সম্মুখ যুদ্ধে তিনি জনগনের মনে আরো বেশি আসন কেড়ে নিয়েছেন।সাধারন মানুষের শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার পাত্র তিনি। তিনি যেমন বুক উজাড় করে জন্মভূমি ও মানুষকে ভালোবেসেছেন, মানুষও এখন তাকে বুক উজাড় করে ভালোবাসে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও সংবাদ

ফেসবুকে আমরা

© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ বিবিসি নিউজ ২৪
Theme Customized BY Shakil IT Park